1. admin@dailyamarpranerhabiganj.com : admin :
সোমবার, ২৪ জুন ২০২৪, ০২:২৬ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম :
ঈদুল আজহাকে সামনে রেখে সারাদেশের ন্যায় ব্যস্ত কামার শিল্পীরা। সিলেটের বিভিন্ন স্থান থেকে চোরাই মোবাইল সিন্ডিকেটের ৬ জন সদস্য র‌্যাব-৯ এর হাতে গ্রেফতার। ঈদকে সামনে রেখে নবীগঞ্জে জমে উঠেছে জমজমাট পশুর হাট! বাহুবল উপজেলা চেয়ারম্যান বিজয়ী আনোয়ার, ভাইস চেয়ারম্যান কামরুল ও মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান রীতা। উপজেলা নির্বাচনে জাল ভোট দেওয়ার অপরাধে ৭ জনের জেল জরিমানা। নবীগঞ্জ উপজেলা নির্বাচন শান্তি পূর্ণ ভাবে সম্পন্ন। চেয়ারম্যান শেফু, ভাইস চেয়ারম্যান সাইফুল ও কাকলী বিজয়ী। নবীগঞ্জে আগুনে পুড়ে ১টি বসত ঘর ছাই! প্রায় ২ লক্ষ টাকার ক্ষয়ক্ষতি। নবীগঞ্জে সিএনজি ও বাসের মুখোমুখি সংঘর্ষে ঘটনাস্থলে এক মহিলা নিহত। আশঙ্কাজনকভাবে সিলেট একজন- নিহতের পরিবারে শোকের ছায়া। মাধবপুরে ঈদগাঁ সংস্কারের নামে বসতবাড়ি ধ্বংসের অভিযোগ, জরিমানা আদায়। নবীগঞ্জে ৪২ হাজার ভারতীয় নাসিরবিড়ি সহ গ্রেফতার ২

কবিরাজি চিকিৎসার নামে নারী দর্শন অতঃপর পুলিশের জালে ধরা।

  • আপডেট সময় : সোমবার, ৭ নভেম্বর, ২০২২
  • ১৫৯ বার পঠিত

 

গত ০৬/১১/২০২২ ইং তারিখ জনৈক এক মহিলা বানিয়াচং থানায় আসিয়া অফিসার ইনচার্জ অজয় চন্দ্র দেব’কে জানান, তাহার মেয়ে কবিরাজ কর্তৃক ধর্ষিত হইয়াছে। বিষয়টি জানার পর অফিসার ইনচার্জ অজয় চন্দ্র দেব গুরুত্বের সহিত নিজে আসামী গ্রেফতার করার নিমিত্তে অভিযানে নেমে পড়েন এবং গত ০৭/১১/২০২২ ইং তারিখ কবিরাজ এনামুল মিয়া (৩৫), পিতা- মৃত ধলাই মিয়া, সাং- জাতুকর্নপাড়া, মাইজের মহল্লা, থানা- বানিয়াচং, জেলা- হবিগঞ্জ’কে গ্রেফতার করেন।

আসামী গ্রেফতারের পর তাহাকে দফায় দফায় ব্যাপক জিজ্ঞাসাবাদ করা হয় জিজ্ঞাসাবাদে সে পুলিশকে চাঞ্চল্যকর তথ্য প্রদান করে।

সে জানায় দীর্ঘদিন পূর্বে জণৈকা ভিকটিমের উপরি ও জ্বীন-ভূতে ধরিয়াছে মর্মে তথ্য পাওয়ার পর ভিকটিমের মাতা কবিরাজের স্মরনাপন্ন হন। তখন কবিরাজ সুকৌশলে ভিকটিমের মাকে বিভিন্নভাবে ভয় দেখাইয়া বলে তোমার মেয়েকে জ্বীনে ধরিয়াছে। জ্বীনের দ্বারা সে গর্ভবর্তীও হতে পারে। তাহাকে একা নিরিবিলি চিকিৎসা করিতে হইবে নতুবা সে সুস্থ হবে না।

কবিরাজের এমন কথায় ভিকটিমের মা ভেঙ্গে পড়েন এবং তার মনের মধ্যে ভয় ঢুকে যায়। তখন সে কবিরাজের পায়ে পড়ে ‍এবং বলে আপনি যেধরনেরই চিকিৎসা করা লাগে আপনি করেন কিন্তু আমার মেয়েকে সুস্থ করে তুলেন।

অতঃপর কবিরাজ ভিকটিমের মাকে চিকিৎসা করানোর কথা বলিয়া তাহার হীন চরিতার্থ উদ্ধার করার জন্য ভিকটিমকে নিয়া তাহার এক বন্ধুর বাসায় যায়। সেখানে নিয়া সে ভিকটিমকে একাধিকবার চিকিৎসা করিতেছে বলিয়া ধর্ষন করে এবং গোপনে ভিকটিমের আপত্তির অবস্থার স্থির চিত্র ও ভিডিও মোবাইল ফোনে ধারন করে। এরপর সে একাধিকবার বিভিন্ন জায়গায় নিয়া ভিকটিমকে ধর্ষন করে। বিষয়টি ভিকটিম বুঝতে পেরে কবিরাজের সহিত যোগাযোগ বন্ধ করে দিতে চায়।

তখন কবিরাজের আসল রূপ বের হয়ে আসে। কবিরাজ তাহার মোবাইলে থাকা ভিকটিমের কিছু স্থির চিত্র ভিকটিমের আত্মীয়-স্বজনের নিকট পাঠাইয়া দিবে বলিয়া ভয় দেখাইতে থাকে এবং তাহার নিকট আসার জন্য বলে। ভিকটিম তখন বাধ্য হয়ে তাহার মাকে বিষয়টি জানাইলে তিনি বিষয়টি পুলিশের নজরে আনেন। পরবর্তীতে পুলিশ ধর্সক কবিরাজকে ভিকটিমের মায়ের দায়েরকৃত মামলায় গ্রেফতার করিয়া বিজ্ঞ আদালতে প্রেরন করিলে কবিরাজ তাহার দোষ স্বীকার করিয়া বিজ্ঞ আদালতে ফৌঃ কাঃ বিঃ আইনের ১৬৪ ধারা মোতাবেক স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি প্রদান করে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরও খবর
© All rights reserved © 2022 Daily Amar Praner Habiganj
Theme Customized By Shakil IT Park